অপদ্য বচন (১৯৬-২০৫)

0

১৯৬. How can one win a fight if s/he denies the very existence of the opponent?

১৯৭.শুনেছি মানুষের বেঁচে থাকার প্রধান অস্ত্র হচ্ছে আশা বা Hope. প্রবাদ-ও আছে বোধ হয়, যতক্ষণ আশ ততক্ষণ শ্বাস বা Vice Versa. প্রবাদটাকে সত্যি মানলে বাঙালি এখনো বেঁচে আছে। কারণ, তাঁরা আশা করে তনুর ধর্ষক আর এসপি বাবুলের বিরুদ্ধে চক্রান্তকারী-রা একজোট হয়ে দেশটাকে ‘সোনার’ বাংলাদেশ বানাবে। যদি-ও ভদ্রস্থ এবং অভদ্রস্থ মিলিয়ে ‘সোনা’ শব্দটির অনেক অর্থ রয়েছে। সেদিকে আর না যাই।

হ্যাঁ, বাঙালি বেঁচে আছে। বাঙালি আলবৎ বেঁচে আছে। কারণ, তাঁরা শুধু আশাই করে না, রাতের স্বপ্নের সাথে পাল্লা দিয়ে ‘রীতি’মত দিবাস্বপ্ন-ও দেখে।

১৯৮. দেশের মানচিত্র প্রতিদিন একটু একটু করে খাঁমচে ধরছে শকুন, খুবলে নিচ্ছে মাংস আর ৬০ ভাগ সবুজের বদলে পুরোপুরি লাল হয়ে উঠছে পতাকার জমিন!

কার পদত্যাগ চাইবো আমরা?

১৯৯. ইংলিশে একটি বেশ প্রচলিত কথা হচ্ছে, ‘ম্যারিড টু দা যব’। ইংলিশ বেশির ভাগ প্রোভার্বের মতো এটারও আমি কখনো কোন অর্থ বা আগা মাথা খুঁজে পেতাম না। আজ পেলাম। বুঝতে পারলাম – আসলে মানুষ তার পার্টনারের সাথে মিউচুয়্যাল ভিত্তিতে যতটা না ইন্টারকোর্স করে, তার চে’ অনেক বেশি তার যব তার সাথে ফোর্স ইন্টারকোর্সে লিপ্ত হয়। আর এ কারণেই বলা হয়, ‘ম্যারিড টু দ্যা যব’।

২০০. বেশির ভাগ সাংবাদিকের কাছে তাঁর পেশাটা হলো, ‘জয়েন্ট জয়েন্টে পয়েন্টে পয়েন্টে ব্যাথা’ টাইপের হকারি করে নিউজ বেঁচা।

২০১. জাতি হিসেবে বাঙালিদের নিয়ে অনেক-এরই একটা কমন অভিযোগ হচ্ছে যে, আমার কম্পিটিটিভ নই। সবসময় কেমন ল্যাথার্জিক, লেট ইট গো টাইপের আচরণ। আমার বিশ্বাস যারা কম্প্লেইন করছে তারা বাঙালির পুরোটা দেখেনি বলেই এধরণের মনমানসিকতা পোষণ করে। কারণ, বাঙালির লিফটে ওঠা দেখলে পৃথিবীর কেউ বলতে পারবে না যে তারা কম্পিটিটিভ নয়।

২০২. আইন সকলের জন্য সমান।*

*শর্ত প্রযোজ্য

২০৩. একের পর এক খুনের পরেও সরকারের কাছে কোন ‘তথ্য’ না থাকাটা অযোগ্যতা, আর তথ্য থাকার পরেও ব্যবস্থা না নে’য়াটা অপরাধ।

২০৪. প্র্যাকটিস অনুসারে বাংলাদেশি নাগরিকদের সবচে’ বড় দু’টি অপরাধ হচ্ছে অধিকার বোধ ও রাজনৈতিক সচেতনতা।

২০৫. কারো সাথে জীবন শেয়ার করার চে’ স্বপ্নগুলো শেয়ার করা অনেক বেশি প্রয়োজন।

প্রথম প্রকাশ ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৭ – ইস্টিশন ব্লগ

0%
0%
Awesome
  • User Ratings (0 Votes)
    0
Share.

About Author

অর্ণব গোস্বামী। বাংলাদেশী ব্লগার এবং প্রাক্তন সাংবাদিক। অনলাইনে লেখালেখির বয়স বছর আটেক। ইচ্ছা ছিলো, সমাজটাকে বদলে দেবার। মৌলবাদী গোষ্ঠীর রক্তচক্ষু, হুমকি-ধামকি আর সময়ে সময়ে আক্রমন দেশ ছাড়তে বাধ্য করেছে কিন্তু উদ্দেশ্য থেকে টলাতে পারেনি।

এখনো স্বপ্ন দেখি, বর্তমান বাংলাস্তান আবারো একদিন পরিণত হবে সোনার বাংলায়।

Leave A Reply

© Copyright 2017 | crafted by codesmite